April 11, 2021, 3:41 pm

ঈদের আগের দিন ও ঈদেরদিন এই দুইদিনে যশোরে তিন জন করোনা রোগীর দাফন সম্পন্ন হয় যশোরের মাটিতে।

আনোয়ার হোসেন ।। যশোরের ছেলে তমারুল ইসলাম তমাল মৃত্যুর পর কারবালায় দাফন করা হয় আগের রাতের কথা। ঈদের দিন আরো দুইজনের দাফন হয় যশোরে। তিনজনই করোনায় আক্রান্ত হয়ে ঢাকাতে মৃত্যুবরণ করেন। যশোরের শার্শা উপজেলার চটকাপোতা গ্রামের মৃত মোঃহুমায়ুন কবিরকে (৫৯) নিজ এলাকায় দাফন সম্পন্ন হয়। হুমায়ুন কবির করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে তার ভাই কর্নেল (অব.) ডা. মোহাম্মদ শাহজাহানের অধীনে রাজধানীতে চিকিৎসাধীন ছিলেন।

কোয়ান্টাম ফাউন্ডেশনের গ্রেটার যশোরের সদস্যরা মৃত দুজনের দাফন কাজে অংশ নেয়। এছাড়া ঈদের দিন রাতে রাজধানীতে মারা যাওয়া আনিসুর রহমান কলি (৫৬) নামে এক ব্যবসায়ীর মরদেহ যশোরে তার পৈত্রিক বাড়িতে এনে কারবালা গোরস্থানে দাফন করা হয়েছে। তিনি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা যান বলে তার নিকটজনরা বলছেন।

কলির দাফন কাজে অংশ নেন যশোরে জেলা ছাত্রলীগের সাবেক নেতা শফিকুল ইসলাম জুয়েলের নেতৃত্বাধীন ‘দাফনযোদ্ধা’রা।মৃত আনিসুর রহমান কলির বাড়ি যশোর শহরের রবীন্দ্রনাথ সড়কে নতুন বাজারের পেছনে। ব্যবসাসূত্রে তিনি পুরান ঢাকার ওয়ারি এলাকায় সপরিবারে বসবাস করতেন। রাজধানীর নবাবপুরে তার কৃষি পার্টসের ব্যবসা রয়েছে। ঈদের আগের দিন ও ঈদেরদিন এই দুইদিনে যশোরে তিন জন করোনা রোগীর দাফন সম্পন্ন হয় যশোরের মাটিতে।

Please Share This Post in Your Social Media

error: Content is protected !!