May 6, 2021, 3:25 am

News Headline :
সুজানগর মনিরুল উলুম দাখিল মাদ্রাসায় এতিমদের সাথে ইফতার মাহফিল বাচ্চা নিয়ে মার্কেটে যাওয়ায় ১২ মা-বাবাকে জরিমানা চাটখিলে একাধিক মামলার আসামী ও তার সহযোগী মাদকসহ আটক। ফরিদগঞ্জে মাদ্রাসায় পড়ুয়া  এক  কিশোরীর আত্মহত্যা বারদী ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ডের ৫ শত পরিবারের মাঝে চাল বিতরণ করেন দাইয়ান মেম্বার। সোনাগাজীর মজলিশপুরে সেচ্ছাসেবক লীগের কার্যালয় উদ্বোধন ও ইফতার বিতরণ। হাতিয়ায় সাংবাদিকের উপর সন্ত্রাসীর হামলা। শ্রীনগর ষোলঘরে নগদ অর্থ বিতরণ ঘোড়াশালে রেমিট্যান্স যোদ্ধা হারুনের পক্ষে ইফতার বিতরণ বেলাবতে মরহুম হাজী আঃ বাতেন ভূইয়া স্মৃতি সংসদের পক্ষ হতে ইফতার ও দোআ মাহফিল অনুষ্ঠিত

নেত্রকোণায় এখনও বাজারে ভীড়, মানা হচ্ছে না সামাজিক দুরত্ব ও সরকারি বিধিনিষেধ

নেত্রকোণা বিশেষ প্রতিনিধি,প্রান্ত চৌধুরী :-
করোনাভাইরাসে আক্রান্তের শংকার মধ্যেও বড় বাজার ও নিত্যপ্রয়োজনীয় দোকানগুলোতে মানা হচ্ছেনা সামাজিক দুরত্ব। ক্রেতা- বিক্রেতারা বলছেন, একান্তই নিরুপায় হয়ে তারা ভীড় ঠেলে বেচাকেনা করছেন। এ অবস্থায় করোনার ঝুকি বাড়লেও প্রশাসনের সচেতনতামুলক প্রচারণা ও কিছু দোকানের সামনে সামাজিক দুরত্বে বৃত্ত একে দিলেও কাজের কাজ তেমন হচ্ছেনা।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে নেত্রকোণা শহরের মেছুয়া বাজার ও বড় বাজার এলাকার কাপড়ের দোকান ও খুচরা বেচা-কেনার বাজারের গিয়ে দেখা যায় করোনার বর্তমান পরিস্থিতিতে ন্যূনতম তিন মিটার দুরত্ব বজায় রেখে কেনা-বেচার সরকারি নির্দেশনা থাকলেও এখানে তা মানার কোন বালাই নেই।নেই সামাজিক দূরত্ব ও পর্যাপ্ত সুরক্ষা সামগ্রী। , সকালে সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, এ রকম ঠাসাঠাসি করে ভীড়ের মধ্যে চলে বেঁচা-কেনা। এভাবেই বাজারের আসা লোকজন ঝুকি নিয়ে ফিরে মিশে যাচ্ছেন যার যার পাড়া, মহল্লায়, গ্রামে ও নিজের বাড়ির লোকজনের সাথে। এক ক্রেতা বলেন, ঝুকি থাকলেও নিতান্তই বাধ্য হয়ে এসেছেন।ঝুকি, এর পরেও সতর্ক সংকেত সব যতটুকু পারি মাইন্যা চলতাছি। যত সম্বব দুরে থাকতাছি। হয়তো কোন সময় খেয়াল না থাকলে হচ্ছে। তবু খেয়াল সতর্ক থাকার চেষ্টা করতাছি।

ক্রেতারা বলছেন, ঝুকি জেনেও বাড়ির লোকজনের খাবার সংগ্রহে বাধ্য হয়েই কেনাকাটা করতে এসেছেন।
জেলা প্রশাসক সামাজিক দুরত্ব বজায়ের বিষয়টি নিশ্চিতে প্রশাসনের পাশাপাশি সুধী সচেতন মহলকে এগিয়ে আসার আহবান জানিয়ে জেলা প্রশাসক মঈনউল ইসলাম বলেন, আমরা প্রচার করছি, মাইকিং করছি, যত গণমাধ্যম আছে। এখন মানুষের মধ্যে সচেতনতা হওয়াটা আবশ্যক। এটা শুধু আমাদের প্রচারের উপরই শুধু নির্ভর করবেনা। অন্য যারা আছেন স্থানীয় সুধী সচেতন মহল সবারই আসলে এগিয়ে াাসতে হবে। তাহলেই সোশ্যাল ডিসট্যান্সিংটা কার্যকর হবে

Please Share This Post in Your Social Media

error: Content is protected !!