May 17, 2021, 8:14 pm

News Headline :
পুরানবাজারে গলায় ফাঁস দিয়ে অটোবাইক চালকের আত্মহত্যা ফরিদগঞ্জে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত সাবেক চসিক মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দিনের সাথে আঁচলস মম কুকিং এর কর্মকর্তাদের ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় সাবেক চসিক মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দিনের সাথে চট্টগ্রাম মহানগর সড়ক পরিবহণ শ্রমিক লীগ নেতৃবৃন্দের ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় আত্রাইয়ে শ্রমিকলীগ নেতাকে কুপিয়ে জখম করার ঘটনায় মামলা দায়ের : মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান গ্রেপ্তার চাঁদপুরে পালিত হলো তিনদিন যাবত ঈদুল ফিতর খাগড়াছড়ির গুইমারায় ৭ম শ্রেণীর ছাত্রীর নগ্ন ভিডিও ধারণের অভিযোগে একজনকে পুলিশে সোপর্দ সাবেক চসিক মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দিনের সাথে ডিজিটাল আন্তর্জাতিক মানবাধিকার ফাউন্ডেশন চট্টগ্রাম বিভাগের নেতৃবৃন্দের ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় কোয়ারেন্টিনে থাকা তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগে পুলিশ কর্মকর্তা গ্রেফতার দখলদার ইসরায়েলের বিরুদ্ধে তুর্কিদের কঠোর অবস্থান

যশোরে শনিবার দুই চিকিৎসক ও একজন গর্ভবতী মা করোনা রোগী সুস্থ হয়েছেন।

আনোয়ার হোসেন। যশোরে দুই চিকিৎসক ও একজন গর্ভবতী মা করোনা রোগী সুস্থ হয়েছেন। এর আগে শুক্রবার চৌগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত (ইএমও) ডা. আসিফ রায়হান সুস্থ হন ।যশোর জেলায় তিনিই সর্বপ্রথম করোনা রোগ থেকে সুস্থ্ হন। সুস্থ হওয়ার পর জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের পক্ষ থেকে তাদেরকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়।

যশোরের সিভিল সার্জন শেখ আবু শাহীন জানান, যশোর জেলায় শনিবার তিনজন করোনা জয় করেছেন। তাদের মধ্যে দুইজন চিকিৎসক এবং একজন গর্ভবর্তী নারী। ডা. নাজমুল হক যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসক এবং ডা. শরীফা খাতুন টিবি হাসপাতালের চিকিৎসক। ২৫ এপ্রিল ডা. নাজমুল হক এবং ২৬ এপ্রিল ডা. শরীফা খাতুনের নমুনায় করোনা শনাক্ত হয়। করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর নিজ বাড়িতেই আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসাধীন ছিলেন। পরপর দুইদফা বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থার গাইডলাইন ও স্বাস্থ্যবিধি অনুযায়ী তাদের নমুনা পরীক্ষায় করোনা নেগেটিভ ফলাফল পাওয়া যায়। তারা করোনা জয় করেছে, তারা এখন সুস্থ।

চৌগাছা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. লুৎফর নাহার জানান, চোগাছা উপজেলার পাশাপোল ইউনিয়নের বানরহুদা গ্রামের আলমগীর হোসেনের স্ত্রী জান্নাতী খাতুন করোনা উৎসর্গ নিয়ে হাসপাতালে আসলে তার নমুনা সংগ্রহ করা হয় এবং ২১ এপ্রিল করোনা পজেটিভ শনাক্ত হয়। তারপর থেকে হাসপাতালের আইসোলেশন সেন্টারে চিকিৎসাধীন ছিলেন। অবস্থার উন্নতি হলে ২ ও ৫ মে পরপর দুইবার তার নমুনা পরীক্ষার জন্য ল্যাবে পাঠানো হয়। পরপর দুবারই নেগেটিভ রির্পোট আসায় জান্নাতী খাতুনকে সমস্ত বিধি মেনে বাড়ি যাওয়ার অনুমতি দেয়া হয়।

এ পর্যন্ত যশোর জেলায় ৭৩ জন করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছেন।

Please Share This Post in Your Social Media

error: Content is protected !!