Breaking News
Home / সমগ্র দেশ / চট্টগ্রাম বিভাগ / করোনা কালে অক্সিজেনের মূল্য বুঝতে পেরেছে মানুষ।

করোনা কালে অক্সিজেনের মূল্য বুঝতে পেরেছে মানুষ।

মোঃবিল্লাল হোসেন, চট্টগ্রাম :- চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক সাবেক সিটি মেয়র আ.জ.ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, মানবজাতির অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখার জন্য অক্সিজেন অন্যতম উপাদান। অক্সিজেন ছাড়া প্রাণীজগত বেঁচে থাকতে পারে না। তাই বায়ু মন্ডলে অক্সিজেনের পরিমাণ ঠিক রাখতে হলে বেশি বেশি করে গাছ লাগাতে হবে। কেননা বৃক্ষরাজি নিঃসরণের মাধ্যমে যে অক্সিজেন ত্যাগ করে তা আমরা গ্রহণ করে বেঁচে আছি। আবার আমাদের নিঃসরিত কার্বন ডাই অক্সাইড বৃক্ষ গ্রহণ করে। অক্সিজেন বেঁচে থাকার জন্য কতটা গুরুত্বপূর্ণ তা মানুষ অনুধাবন করেছে করোনা কালে। সেসময় দেশে ৬০ সিসি’র প্রতিটি অক্সিজেন সিলিন্ডারের দাম বাড়তে বাড়তে তিন হাজার টাকা থেকে ২৫ হাজার টাকা পর্যন্ত উঠেছে।অবস্থা এমন হয়েছে টাকা দিয়েও অক্সিজেন পাওয়া যায়নি। শুধুমাত্র অক্সিজেন সাপোর্ট না পেয়ে অনেক করোনা রোগী মারা গেছে। তাই গাছ লাগানো মানে দেশ বাঁচানো।দেশের মানুষকে বাঁচানো। তাই বায়ু মন্ডলে অক্সিজেনের স্বল্পতা যাতে সৃষ্টি না হয়, কার্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ যাতে বেড়ে না যায়; জলবায়ু পরিবর্তন হয়ে যাতে উষ্ণতা বৃদ্ধি না পায়; সেই বিষয়টি অনুধাবন করে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মুজিববর্ষে সারাদেশে এক কোটি গাছের চারা রোপনের কর্মসুচি গ্রহণ করেছেন। সেই কর্মসুচির অংশ হিসেবে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ নগরের ৪৩ ওয়ার্ড জুড়ে ৫০ হাজার গাছের চারা রোপনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।প্রথম পর্যায়ে তৃণমূল নেতৃবৃন্দের মাধ্যমে প্রতি ওয়ার্ডে দুইশটি করে গাছের চারা বিতরণ করা হয়েছে। দ্বিতীয় পর্যায়ে ওয়ার্ড ভিত্তিক দুইশটি করে গাছের চারা বিতরণ করা হচ্ছে। গত ২৪ আগষ্ট থেকে দ্বিতীয় পর্যায়ের এই কর্মসুচি বাস্তবায়ন শুরু হয়েছে।আজ পর্যন্ত নগরীর ১নং দক্ষিণ পাহাড়তলী, ২নং জালালাবাদ, ৩নং পাঁচলাইশ,৯নং পাহাড়তলী ,১০নং উত্তর কাট্টলী ও ১১ নং দক্ষিণ কাট্টলী ওয়ার্ডে গাছের চারা বিতরণ করা হয়েছে।

Check Also

শ্রীনগরে মুক্তিযোদ্ধা ও ঘোড়াঘাটের ইউএনও‘র উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন

সুমন হোসেন শাওনঃ মুন্সীগঞ্জ শ্রীনগরে মুক্তিযোদ্ধা ও ঘোড়াঘাটের ইউএনও‘র উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন করা হয়েছে। …

Powered by themekiller.com