সাবমেরিন নৌঘাঁটির বিপুল পরিমান লোহা উদ্ধার,আহত-৩

পেকুয়া (প্রতিনিধি) কক্সবাজারের পেকুয়ার মগনামায় নির্মাণাধীন সাবমেরিন নৌঘাঁটি হতে চুরি হওয়া মালামাল উদ্ধার করতে গেলে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়েছে। এতে ৩জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। বুধবার (২৬ জানুয়ারী) গভীর রাতে মগনামা ইউপির শুদ্ধখালী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ দু’দফা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। রাতে একটি পক্ষ ইউপি চেয়ারম্যান ও নৌবাহিনীর লোকজনকে ধাওয়া দেয়।
আহতরা হলেন বেদেরবিলপাড়ার জসিম উদ্দিন, হুমায়ন ও মনজুর আলম। তাদের হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। মগনামা ইউপির চেয়ারম্যান ইউনুস চৌধুরী বলেন, সাবমেরিন নৌঘাঁটি থেকে প্রতিনিয়ত মালামাল পাচার হচ্ছে। একটি শক্তিশালী চোর সিন্ডিকেট নৌঘাঁটির কাজ শুরু হওয়ার পর থেকে জ্বালানি তেলসহ কোটি কোটি টাকার মালামাল চুরি করে চট্টগ্রামসহ বিভিন্ন জায়গায় পাচার করে আসছে। গোপন সংবাদ পেয়ে নৌবাহিনীর কর্মকর্তা, ইউপি সদস্য ও গ্রামপুলিশ নিয়ে শুদ্ধখালী এলাকায় অভিযান চালিয়ে আবু তাহেরের বাড়ির উঠান ও পুকুর হতে বিপুল পরিমান লোহা উদ্ধার করা হয়। শুনেছি আমরা চলে আসার পর নৌবাহিনীর লোকজন উদ্ধার করা মালামাল নিয়ে আসতে গেলে তারা ধাওয়া দেয়। কিছু মালামাল সরিয়ে ফেলে।
ইউপি সদস্য কাসেম উদ্দিন বলেন, নৌবাহিনীর লোকজনসহ রাতে চেয়ারময়ান স্যারের সাথে মালামাল উদ্ধার করতে গিয়েছিলাম। মালামাল উদ্ধারের খবর শুনে পাশের গ্রাম থেকে কিছু লোক দেখতে গিয়েছিল। তারা হামলা চালিয়ে দেখতে আসা কয়েকজন ব্যক্তিকে পিটিয়ে আহত করে। নৌবাহিনীর লোকজনকেও ধাওয়া দিয়েছে। সকালে আবুতাহেরের বাড়ি থেকে উদ্ধার হওয়া কিছু লোহা নৌবাহিনীর লোকজন নিয়ে গেছে। তবে আহতের বিষয়ে অবগত নন বলে জানান চেয়ারম্যান ইউনুস চৌধুরী। এ বিষয়ে জানতে পেকুয়া থানার ওসি শেখ মোহাম্মদ আলীর মুঠোফোনে কয়েকবার যোগাযোগ করা হয়। রিসিভ না করায় বক্তব্য নেওয়া যায়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আজকের দিন-তারিখ
  • সোমবার (সকাল ৬:৪০)
  • ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • ৩০শে সফর, ১৪৪৪ হিজরি
  • ১১ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ (শরৎকাল)
পুরানো সংবাদ
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০