চীনে ভবন ধসে নিহত বেড়ে ৫৩

যমুনা নিউজ বিডিঃ চীনে একটি বহুতল ভবন ধসের নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৫৩ জনে দাঁড়িয়েছে। গত সপ্তাহে দেশটির চাংশা নগরীতে ভবন ধসের ঘটনা ঘটে। ধ্বংসস্তূপ থেকে এ পর্যন্ত ১০ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে। এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে এনডিটিভি।

সিসিটিভির বরাতে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, হুনান প্রদেশের আট তলা ওই ভবনটি গত ২৯ এপ্রিল ধসে পড়ে। এরপর থেকে চলে উদ্ধারকাজ। এ পর্যন্ত ১০ জনকে জীবিত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে ধ্বংসস্তূপ থেকে। যাদের মধ্যে একজনকে ঘটনার পাঁচ দিন ১১ ঘণ্টা পর উদ্ধার করা হয়।

চীনা সরকারি সিনহুয়া বার্তা সংস্থা জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার মধ্যরাতের পরপরই এই নারীকে উদ্ধার করা হয়, ২৯শে এপ্রিল হঠাৎ করে ছয়তলা ভবনের পেছনের অংশটি ভেঙ্গে পড়ার প্রায় ১৩২ ঘণ্টা পর।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ঐ নারী সচেতন ছিলেন এবং উদ্ধারকারীদের পরামর্শ দিয়েছিলেন যে কীভাবে তাকে আরও আঘাত না দিয়ে বাইরে বের করা যায়। অনুসন্ধান কার্যক্রমে কর্মীরা কুকুর এবং হ্যান্ড টুলের পাশাপাশি ড্রোন এবং ইলেকট্রনিক লাইফ ডিটেক্টর ব্যবহার করেছিল।

হাসপাতালে চিকিৎসার পর বেঁচে যাওয়া সকলের অবস্থা ভালো বলে জানা গেছে। সাম্প্রতিক দিনগুলিতে থেমে থেমে বৃষ্টির কারণে, যারা বেঁচে ছিল তাদের খাবার বা পানি ছাড়াই বেঁচে থাকার সম্ভাবনা বেড়ে গিয়েছিল।

শিনহুয়া যাকে “স্ব-নির্মিত ভবন ” হিসাবে বর্ণনা করেছে সেটি ধসে পড়ার ঘটনায় এর মালিক সহ অন্তত নয়জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বিল্ডিং কোড উপেক্ষা করা বা অন্যান্য নিয়ম লঙ্ঘন করার সন্দেহে এদের আটক করা হয়েছে।

এছাড়াও নকশা ও নির্মাণের দায়িত্বে থাকা তিনজন এবং অন্য পাঁচজনকে আটক করা হয়েছে, যারা ভবনের চতুর্থ থেকে ষষ্ঠ তলায় একটি গেস্ট হাউজের জন্য নিরাপত্তা সম্পর্কে মিথ্যা মূল্যায়ন করেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

সাম্প্রতিক বছরগুলিতে স্ব-নির্মিত বিল্ডিংগুলির ধসের সংখ্যা বৃদ্ধির ফলে চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং গত মাসে কাঠামোগত দুর্বলতাগুলি চিহ্নিত করার জন্য অতিরিক্ত পরীক্ষার আহ্বান জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আজকের দিন-তারিখ
  • সোমবার (সকাল ৬:৪৮)
  • ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • ৩০শে সফর, ১৪৪৪ হিজরি
  • ১১ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ (শরৎকাল)
পুরানো সংবাদ
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০