এমপি ফারুক চৌধুরীর প্রচেষ্টায় পাল্টে গেছে তানোরের উন্নয়ন: সুইট

 

সারোয়ার হোসেন, তানোর: দেশজুড়ে আওয়ামী লীগ সরকারের চলমান উন্নয়ন অব্যাহত রেখে রাজশাহী-১(তানোর-গোদাগাড়ী) উপজেলার গ্রামীণ জনপদের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন ঘটাতে এমপি ওমর ফারুক চৌধুরী একমাত্র সক্ষম হয়েছেন বলে জানান জেলা সেচ্ছাসেবক লীগের সদস্য ও তানোর উপজেলা সেচ্ছাসেবক লীগের সদস্য সচিব রামিল হাসান সুইট।

সেচ্ছাসেবক লীগ নেতা রামিল হাসান সুইট বলেন, তানোর-গোদাগাড়ী উপজেলার প্রত্যান্ত গ্রামের মানুষকে আর কষ্ট করে মেঠোপথ হেঁটে বাজার হাটে যেতে হয়না,হয়না চিকিৎসা সেবার জন্য কষ্ট করে উপজেলা সদর মেডিকেলে। টাকার জন্য বন্ধ হয়না ছেলে-মেয়েদের লেখাপড়া। আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে এমপি ওমর ফারুক চৌধুরী তার সর্বোচ্চ মেধা যোগ্যতা দিয়ে এই দু’উপজেলার মানুষের ভাগ্যে পরিবর্তনে কাজ করে যাচ্ছেন।

সেচ্ছাসেবক লীগ নেতা রামিল হাসান সুইট আরো বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারের প্রায় ১৩ বছরে এমপি ওমর ওমর ফারুক চৌধূরীর নিরলস প্রচেষ্টায় তানোর-গোদাগাড়ী উপজেলার নজরকাড়া উন্নয়ন করা সম্ভব হয়েছে। যা বিগত বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের প্রায় ১৫ বছরের উন্নয়নকে ছাড়িয়ে গেছে আওয়ামী লীগ দলীয় সরকারের আমলে। বরেন্দ্র অঞ্চলের অর্ন্তভুক্ত তানোর-গোদাগাড়ীর প্রত্যন্ত দূর্গম পল্লীর মেঠোপথ পাকাকরণ থেকে শুরু করে স্কুল-কলেজ ও মাদ্রাসা সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে নির্মিত হয়েছে আধূনিক ডিজিটাল প্রযুক্তি সম্পূর্ণ দৃষ্টিনন্দন সব নতুন নতুন শহীদ মিনার ও একাডেমিক ভবন। যা একমাত্র এমপি ওমর ফারুক চৌধুরীর জন্যেই সম্ভব হয়েছে বলে জানান এ সেচ্ছাসেবক লীগের নেতা রামিল হাসান সুইট।

রামিল হাসান সুইট আরো বলেন, বিগত বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের প্রায় ১৫ বছরেও এসব উন্নয়ন কাজ হয়নি। তিনি বলেন,রাজশাহী-১ (তানোর-গোদাগাড়ী) আসনের সংসদ সদস্য ও রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ওমর ফারুক চৌধুরীর রাজনৈতিক দূরদর্শিতা ও দক্ষ নেতৃত্বের জন্য এই সংসদীয় এলকায় গত ১৩ বছরে উন্নয়নের দিক থেকে সর্বকালের রেকর্ড ছাড়িয়েছেন এমপি ওমর ফারুক চৌধুরী।

রামিল হাসান সুইট বলেছেন,কৃষক ও মৎস্যজীবীদের ভাগ্যের চাকা ঘুরেছে সঙ্গে চাঙ্গা হয়েছে গ্রামীণ অর্থনীতির গতি। এছাড়া এই দুই উপজেলায় বিগত যে কোন সময়ের চেয়ে আইন-শৃঙ্খালা পরিস্থিতি তিনগুণ উন্নতি হয়েছে।এমনকি সুষ্ঠু পরিবেশে রয়েছে রাজনৈতিক সহাবস্থান এবং বন্ধ হয়েছে হানাহানি,থানায় দালালী বলেও জানান সেচ্ছাসেবক লীগ নেতা রামিল হাসান সুইট। এমপি ওমর ফারুক চৌধূরীর সময়ে আধূনিক ও দৃষ্টিনন্দন যে পরিমাণ একাডেমিক ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। তা প্রয়াত বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার আমিনুল হকের ১৫ বছরেও এর ১সিকি ভাগও নির্মাণ করা হয়নি।

শুধুমাত্র এমপি ওমর ফারুক চৌধূরীর প্রচেস্টায় ব্যক্তিগত উদ্যোগে হলেও কৃষি প্রধান তানোরে ৫টি কোল্ডস্টোর ও পোল্টি ফার্ম (ডিম উৎপাদন) ও বিভিন্ন রকমের কৃষিভিত্তিক শিল্প-কল কারখানা গড়ে উঠেছে। গত ১৩ বছরে তানোর ও গোদাগাড়ী উপজেলার অবকাঠামোসহ বিভিন্ন পর্যায়ের উন্নয়নে কয়েক’শ কোটি টাকা বরাদ্দ এসেছে। যার মাধ্যমে রাস্তা ঘাট নির্মাণ ও সংস্কার এবং বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ভবন নির্মাণসহ উন্নয়ন মুলক কাজ করা হয়েছে। ১৩ বছরের বরাদ্দ আগের যেকোন সময়ের অনেক বেশী বলে জানান এই সেচ্ছাসেবক লীগ নেতা রামিল হাসান সুইট। তাই এই সেচ্ছাসেবক লীগ নেতা রামিল হাসান সুইট কারো কথাই কান না দিয়ে দেশের উন্নয়নে নিজ এলাকার উন্নয়নে আবারো আওয়ামী লীগের নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে হবে। তাই এদিকে ওদিকে না গিয়ে নৌকার সাথেই থাকুন এমপি ওমর ফারুক চৌধুরীর সাথেই থাকুন বলে তানোর-গোদাগাড়ী উপজেলার জনসাধারণের কাছে আহ্বান জানান সেচ্ছাসেবক লীগ নেতা রামিল হাসান সুইট।

 

সারোয়ার হোসেন
২৪ সেপ্টেম্বর /২০২২ইং

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আজকের দিন-তারিখ
  • সোমবার (রাত ৯:২৮)
  • ২৮শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • ৪ঠা জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি
  • ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ (হেমন্তকাল)
পুরানো সংবাদ
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০