May 25, 2022, 1:57 am

News Headline :
ময়মনসিংহে ব‍্যবসায়ী সমিতির উদ্যোগে পরিচ্ছন্ন হলো চুড়খাই বাজার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে ফরিদগঞ্জে ছাত্রলীগের বিক্ষোভ মিছিল মধ্যপাড়া খনি শ্রমিক সন্তানদের শিক্ষা উপবৃত্তি প্রদান ঠাকুরগাঁওয়ে মোটর সাইকেলের ধাক্কায়  বৃদ্ধার মৃত্যু  পিরোজপুরে বেগম খালেদা জিয়াকে কটূক্তি ও কেন্দ্রিয় ছাত্রদলের সভাপতি’র উপরে মামলা নির্যাতনের প্রতিবাদে ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তির প্রতিবাদে সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের বিক্ষোভ  জেলা তথ্য অফিস আয়োজনে সরকারের উন্নয়ন কার্যক্রম প্রচারণায় হাইমচরে মহিলা সমাবেশ পার্বতীপুরে ল্যাম্ব হাসপাতাল কতৃক টর্নেডো কবলিত ১০ পরিবারকে সহায়তা প্রদান  চান্দ্রায় ইউনিয়ন পরিষদে নিবন্ধিত জেলেদের মাঝে চাউল বিতরণ একজন কবি ও লেখকের চোখে অঞ্জনা খান মজলিস

করোনা সচেতনতা

প্রসঙ্গঃ করোনা সচেতনতা নজরুল বাঙালি।

খুব ছোট বেলা থেকে শুনে আসছি দ্বিতীয় বিশ্ব যুদ্ধের পর আরো একটি তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ হবে তার প্রতিপাদ্য হবে পৃথিবীর পরাশক্তি দেশ গুলো দূর্বল সম্পদশালী দেশ গুলোর আক্রমণ করা হবে এতে কোটি কোটি মানুষের প্রান যাবে কিন্তু সম্পদ গুলো থেকে যাবে আর এ যুদ্ধ হবে সারা বিশ্বব্যাপী।যাক তবে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধের আলামত না দেখা গেলোও তবে একটি বিশ্বযুদ্ধ যে বিশ্বব্যাপী ঘটে গেছে এটি কারো অজানা নয়। আর এটি কোন হিটলারের নাৎসি বাহিনী অত্যাচার নয় বা জাপান ব্রিটিশের যুদ্ধ ও নয় এই যুদ্ধটির নাম কেভিট-১৯ বা করোনা। আজ করোনা সারা পৃথিবীতে মরন আগ্রাসন মারাত্মক ভাবে ছড়িয়ে রয়েছে আতংক গ্রস্ত সারা দুনিয়ায় মানুষ। এ মৃত্যু যে কত কঠিন যন্ত্রণা যারা করোনা আক্রান্ত হয়ে সর্বস্ব হারিয়ে বেঁচে আছেন শুধু তারাই হাড়ে হাড়ে উপলব্ধি করতে পেরেছেন। আমরা বাঙালিরা বুজি দুবেলা দুমুঠো ভাত খেয়ে বেঁছে থাকার নাম জীবন। এটা আমরা মাথা মোটা বাঙালিরা মনে করি।আবার কিছু আবাল বাঙালি মনে করে উপবাস না থেকে করোনায় মৃত্যু অনেক ভালো তার মানে আপনার সন্পদের দরকার। এখানে কথা থেকে যায় আপনি যখন করোনা করাল থাবা থেকে নিজেকে বাঁচাতে পারবেনা তখন আপনার এই যক্ষের ধন কার জন্য। বুঝলাম আপনি কোন স্বাস্থ্যবিধি মানবেন না মুখে মাক্স পড়বেন না আপনি যে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ নিয়ে দিব্যি আরামে ঘুরছে আপনি মারা যাবেন কিন্তু আপনি যে আরও কতজন কে বাঁচার স্বপ্ন কে মলান করে দিলেন এর জবাব কি?আমরা ৭১ এর মুক্তিযুদ্ধ দেখেছি পাক-হানাদারদের মৃত্যু যন্ত্রণা থেকে বেঁচে থাকার জন্য মানুষ দিগ্বিদিক পালিয়ে বেড়িয়েছে নীজের জীবন রক্ষায়। ৭১ এর মুক্তিযুদ্ধ থেকে এই মরণব্যাধি করোনা যুদ্ধ কম ভয়াবহ নয়।আমরা ৭৪ এর দুর্ভিক্ষ দেখেছি তখন না খেয়ে যত মানুষ মরেনি এই মরন ব্যাধি করোনা যুদ্ধে তার চেয়েও বেশী মানুষ মারা গিয়েছে। তাই বলছি ১০ বা ১৫ দিন মানুষ না খেয়ে মারা যাবে না তাছাড়া ও সরকার কম পরিসরে হলেও অসহায়দের পাশে দাঁড়ানো সেই ব্যবস্থা করেছেন। তাই আবারও বলছি একটি জাতিকে বাঁচাতে আপনি স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন আপনি নিজে বাঁচুন আগামী প্রজন্মকে বাঁচার জন্য সুযোগ করে দিন। কারো কোন গুজবে কান দিবেন না। একটি জাতিকে ধ্বংসের হাত থেকে রক্ষা করুন। আপনার সচেতনতাই পারে একটি জাতিকে রক্ষা করতে।

 

নিউজটি শেয়ার করুন


© All rights reserved © greenbanglanews.com
Design, Developed & Hosted BY ALL IT BD