তানোরে মন্দিরে মন্দিরে চলছে প্রতিমা তৈরির কাজ

 

তানোর প্রতিনিধি: হিন্দু ধর্মালম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব শারদীয় দূর্গাপুজা উৎসব। ইতিমধ্যে কেন কোন মন্ডপে প্রতিমা তৈরির কাজ শেষ করে রংতুলির আঁচড় দেয়ার জন্য নিচ্ছেন প্রস্তুতি। আবার কোন মন্ডপে চলছে বাঁশ কাঠ মাটি দিয়ে প্রতিমা তৈরিতে শিল্পীদের ব্যস্ততা। অন্যদিকে দূর্গাপুজাকে ঘিরে কঠোর নিরাপত্তা জোরদার করতে প্রস্তুত রয়েছে উপজেলা প্রশাসন। জানা গেছে, দূর্গাপুজাকে ঘিরে যেন কোন সাম্প্রদায়িক ঘটনা ঘটাতে না পারে সেজন্য তানোর উপজেলা প্রশাসন ও থানা পুলিশের বিশেষ বিশেষ কৌশল অবলম্বন করে কঠোর নিরাপত্তায় মণ্ডপে মণ্ডপে প্রতিমা শিল্পীরা দিন-রাত প্রতিমা তৈরির কাজ করে যাচ্ছেন।

তানোর উপজেলার সাতটি ইউনিয়নের বিভিন্ন মন্দির ও তানোর মুন্ডুমালা পৌরসভা কয়েকটি মন্দির ঘুরে দেখা গেছে,শিল্পীদের শৈল্পিক ছোঁয়ায় খড়, মাটি ও পাট আর কাঁদা দিয়ে তৈরি হচ্ছে দূর্গাপুজার প্রতিমা। কেউ আউড় (খড়) দিয়ে মূর্তি তৈরির প্রাথমিক কাজ করছেন, কেউবা মাটি দিয়ে আউড়ের ওপর আবরণ দিচ্ছেন।

অবশ্য প্রায় মণ্ডপে প্রতিমা তৈরির কাজ শেষের দিকে। এখন শুধু রংতুলির ছোঁয়া দিয়ে প্রতিমা সাজিয়ে তুললেই হয়ে যাবে দূর্গাপূজার জন্য প্রতিমা তৈরির পুরো কাজ। জানা গেছে, প্রতিবারের ন্যায় এবারেও উপজেলা জুড়ে প্রায় ৫৪টি মন্দিরে শারদীয় দূর্গাপুজা উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। আর এই হিন্দু ধর্মালম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব দূর্গাপুজাকে ঘিরে যেন কোন প্রকার অপ্রীতিকর সাম্প্রদায়িক ঘটনা না ঘটে সেজন্য তানোর থানা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সবরকম প্রস্তুত্তি গ্রহণ করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন এসআই হাফিজ উদ্দিন।

তানোর সদর শিবতলা কেন্দ্রীয় মন্দির কমিটির সভাপতি শ্রী পরেশ কুমার দাস বলেন, আমাদের হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় উৎসব শারদীয় দূর্গাপুজা। ইতিমধ্যে আমরা দূর্গাপুজার প্রতিমা তৈরির কাজ শেষ করেছি, এখন শুধু রং করলেই প্রতিমার পুরো কাজ সম্পূর্ণ হবে।

তানোর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইউএনও পংকজ চন্দ্র দেবনাথ জানান, দূর্গাপুজা উৎসবকে ঘিরে কেউ যেন কোন প্রকার সাম্প্রদায়িক ডাঙ্গা হাঙ্গামা করে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে না পারে সেজন্য থানা পুলিশকে প্রতিনিয়ত সকল মন্দির পর্যাবেক্ষনে রাখার পাশাপাশি উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সার্বখনিক তদারকি করা হচ্ছে। আশা করা যাচ্ছে কোন প্রকার বিশৃংখলা ছাড়াই সুষ্ঠু ভাবে দূর্গাপুজা উৎসব পালক করবে দেশবাসী বলে তানোর উপজেলা বাসীসহ দেশবাসীকে শারদীয় দূর্গাপুজা উৎসবের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তিনি।

তানোর থানার অফিসার এসআই হাফিজ উদ্দিন জানান, হিন্দু ধর্মালম্বীদের বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দূর্গাপুজা, আর এই দূর্গাপুজা পালন করতে হিন্দু সম্প্রদায়ের যেন কোন বিঘ্ন না ঘটে সেজন্য সর্বদা প্রস্তুত রয়েছে পুলিশ প্রশাসন। এমনকি সাদা পোশাকে প্রতিনিয়ত টহল দেয়াসহ র্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত টহলরত থাকবে বলে তিনি জানান।

সারোয়ার হোসেন
২০ সেপ্টেম্বর /২০২২ইং

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আজকের দিন-তারিখ
  • সোমবার (রাত ৯:১১)
  • ৩রা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  • ৭ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি
  • ১৮ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ (শরৎকাল)
পুরানো সংবাদ
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১