নওগাঁয় ১২ জন ডাকাত আটক, ট্রাক, ৩৪২ বস্তা আতপ চাল, টাকা উদ্ধার

 

অন্তর আহমেদ নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি: নওগাঁ জেলা পুলিশ কর্তৃক আন্তঃজেলা ডাকাত দলের ১২ জন সক্রিয় সদস্য গ্রেফতার, লুষ্ঠিত ট্রাকসহ ৩৪২ বস্তা চাল বিক্রয়ের ২ লক্ষ ১৬ হাজার ৪৫০ টাকা উদ্ধার। শুক্রবার ৩১মার্চ সকাল ১১টায় জেলা পুলিশ সুপার এর কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার মুহাম্মদ রাশিদুল হক বলেন, গত ২২মার্চ আনুমানিক রাত ০১.৩০ সময় নওগাঁ সদরের বাইপাস সড়ক থেকে ০৮ জন ডাকাত ট্রাকের চালক ও হেলপারকে বেঁধে রেখে একটি চাল বোঝাই ট্রাক ডাকাতি করে। ট্রাকটিতে চারশো বস্তা আতব চাল নিয়ে গাইবান্ধা থেকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ যাচ্ছিল। পথিমধ্যে রাত একটার পরে সদরের বাইপাস সড়কের ইকরতারা নামক স্থানে পৌঁছলে ডাকাত দল রাস্তায় গাছের গুঁড়ি ফেলে উক্ত ট্রাকটি থামিয়ে ড্রাইভার এবং হেলপারকে ট্রাক থেকে নামিয়ে রাস্তার উত্তর পাশে মাঠের মধ্যে হাত পা বেঁধে রেখে দুইজন ডাকাত ট্রাকটি নিয়ে চলে যায়। প্রায় দুই থেকে আড়াই ঘণ্টা পর বাকি ডাকাতরা ড্রাইভার এবং হেলপার’কে ফেলে রেখে চলে যায়। ভোরে ড্রাইভার এবং হেলপার কৌশলে তাদের হাতের বাঁধন খুলে পাশে লোকালায়ে গিয়ে বিষয়টি জানালে তারা সকালবেলা পুলিশকে জানায়। এ সংক্রান্তে নওগাঁ সদর মডেল থানা একটি মামলা দায়ের হলে জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ গাজিউর রহমান, পিপিএম এর নেতৃত্বে সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ফৌজিয়া হাবিব খান, সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মুঃ ফয়সাল বিন আহসান ও ইন্সপেক্টর (অপারেশনস্) আব্দুল গফুরসহ পুলিশের কয়েকটি টিম ডাকাতদের সনাক্ত করার জন্য কার্যক্রম শুরু করে। একপর্যায়ে বগুড়া জেলার শেরপুর থানার রানিরহাটে পরিত্যক্ত অবস্থায় ট্রাকটি উদ্ধার করা হয়। এরপর প্রযুক্তি এবং সোর্সকে কাজে লাগিয়ে পুলিশ নিশ্চিত হয় যে, ডাকাতিকৃত চাল শেরপুর থানার একটি গোডাউনে আনলোড করা হয়েছে গত ২৮ মার্চ সেখানে অভিযান চালিয়ে ডাকাতিকৃত চালের দুই জন ক্রেতাকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে ডাকাত সোহাগের বাড়ী থেকে দশ বস্তা চাল এবং বগুড়া সদরের নিশিন্দারা হতে বিশ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়। এছাড়াও গত ২৯ মার্চ কাহালু থানা এলাকা থেকে শাজির উদ্দীন মন্ডল ওরফে মিলন ডাকাতকে গ্রেফতার করে তার কাছে থেকে ১১১ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়। এরপর ২৯ মার্চ ডাকাত জিয়াকে কাহালু থানা এলাকা থেকে এবং ৩০ মার্চ রাতে ডাকাত শাজাহান ওরফে লালন, মেহেদী এবং ইউসুফকে জয়পুরহাট জেলার আক্কেলপুর থানা থেকে ও নওগাঁ জেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে গ্রেফতার করা হয়। ডাকাত মেহেদী হাসান ও ইউসুফ বিজ্ঞ আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।
তিনি আরো বলেন, গতরাতে বগুড়া সদরে অভিযান চালিয়ে ডাকাত মাহফুজ, রাজু পালোয়ান এবং রতনকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত রাজু পালোয়ানকে নিয়ে সিরাজগঞ্জ-এ অভিযান চালিয়ে ডাকাতিকৃত চাল বিক্রয়ের সাথে জড়িত হাটিকুমরুল এলাকার শরিফকে গ্রেফতার করে তার স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে ১১১ বস্তা চাল বিক্রির ২,১৬,৪৫০/- টাকা তার নিকট হতে জব্দ করা হয়। এছাড়াও গ্রেফতারকৃত ডাকাতদের কাছ থেকে ডাকাতি কাজে ব্যবহৃত দেশীয় অস্ত্র হাসুয়া, দা, প্লাস ও হাতুড়ি উদ্ধার করা হয়।
উল্লেখ্য যে, দেশের বিভিন্ন জেলায় গ্রেফতারকৃত আসামী জিয়ার বিরুদ্ধে ডাকাতিসহ ০৭টি, আব্দুল মজিদের বিরুদ্ধে ডাকাতিসহ ০৪টি, মেহেদীর বিরুদ্ধে ডাকাতিসহ ০২টি, রতনের বিরুদ্ধে ডাকাতিসহ ০৭টি এবং রাজু পালোয়ানের বিরুদ্ধে খুন-ডাকাতিসহ ০৮টি মামলা রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আজকের দিন-তারিখ
  • রবিবার (রাত ৮:১২)
  • ৪ঠা জুন, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
  • ১৫ই জিলকদ, ১৪৪৪ হিজরি
  • ২১শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ (গ্রীষ্মকাল)
পুরানো সংবাদ
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০